বায়ান্ন ডেস্ক :: সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সিলেট জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মো. লুৎফুর রহমানের দাফন সম্পন্ন হয়েছে।

শুক্রবার বেলা তিনটার দিকে নগরীর মানিকপীর কবরস্থানে বঙ্গবন্ধুর সাহচর্য পাওয়া এই রাজনীতিবিদের দাফন সম্পন্ন হয়।

এর আগে বেলা আড়াইটার দিকে নগরীর আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে তার জানাযার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। সাবেক গণপরিষদ সদস্য ও সর্বজন শ্রদ্ধেয় এ নেতার জানাযায় অংশ নিতে জুমআর নামাজের পরপরই আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে জড়ো হতে থাকে রাজনৈতিক নেতা-কর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষ। উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ ও প্রশাসনের উর্ধতন কর্মকর্তারাও। এতে জানাযা শুরুর আগেই লোকে লোকারণ্য হয়ে পড়ে নগরীর ঐতিহাসিক আলিয়া মাদ্রাসা মাঠ।

জানাযার আগে বীর মুক্তিযোদ্ধা লুৎফুর রহমানের কফিনে সর্বস্তরের মানুষ শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়েছে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকেও। এছাড়া শ্রদ্ধা নিবেদন করেন তাঁর দীর্ঘদিনের রাজনৈতিক সহযোদ্ধাবৃন্দ।

এদিকে বেলা ১১ টার দিকে তাঁর মরদেহ শেষবারের মতো জেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে নিয়ে যাওয়া হয়। জেলা পরিষদের প্রথম নির্বাচিত চেয়ারম্যান হিসেবে নিজের মেয়াদ পূর্ণ না করেই না ফেরার দেশে চলে যাওয়া এই নেতার মরদেহ জেলা পরিষদ প্রোাঙ্গণে আসার পর এই ভিড় বাড়তে থাকে। মূলত সকাল থেকেই বিভিন্ন সরকারি কর্মকর্তা ও রাজনৈতিক নেতারা সকাল থেকেই জেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে ভিড় করেন।

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (২ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৪টা ১০ মিনিটে তিনি নগরীর নয়াসড়কস্থ একটি প্রাইভেট হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে থাকা অবস্থায় ইন্তেকাল করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮২ বছর। তিনি দুই ছেলে, এক মেয়ে ও আত্মীয়-স্বজনসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুনঃ

Facebook comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You may use these HTML tags and attributes: <a href="" title=""> <abbr title=""> <acronym title=""> <b> <blockquote cite=""> <cite> <code> <del datetime=""> <em> <i> <q cite=""> <s> <strike> <strong>